আত্মনির্ভর ভারত অভিযান 2023: অনলাইন অ্যাপ্লিকেশন সুবিধা এবং যোগ্যতা

আত্মনির্ভর ভারত অভিযান: করোনা ভাইরাসের থাবায় সারা বিশ্বের মত ভারতের অর্থনীতিও প্রায় স্থবির হয়ে গিয়েছিলো। সেই স্থবির অর্থনীতিকে গতিশীল করতে সরকারের পক্ষ হতে নানা উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। চালু করা হয়েছে নানা প্রকল্প। এই সকল প্রকল্পের মাঝে একটি হলো আত্মনির্ভর ভারত অভিযান ৩.০। গত ১২ই নভেম্বর ২০২০, ভারতের কেন্দ্রীয় সরকারের অর্থমন্ত্রী নির্মালা সীতারমান এই প্রকল্পের কথা ঘোষনা করেন।

আত্মনির্ভর ভারত অভিযান: অনলাইন অ্যাপ্লিকেশন সুবিধা এবং যোগ্যতা
আত্মনির্ভর ভারত অভিযান: অনলাইন অ্যাপ্লিকেশন সুবিধা এবং যোগ্যতা

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির মতে একটি দেশ তার ৫ টি স্তম্ভের উপর দাঁড়িয়ে থাকে। এগুলি হলো অর্থনীতি, পরিকাঠামো, সিস্টেম, ডেমোগ্র্য়াফি, চাহিদা। এই মূলনীতির উপর ভিত্তি করে ভারত সরকার ইতিমধ্যে ১২ই মে ২০২০ আত্মনির্ভর ভারত অভিযান ঘোষনা করেন। সেই প্রকল্পের ধারাবাহিকতায় আত্মনির্ভর ভারত অভিযান ২ এবং ১২ই নভেম্বর ২০২০ আত্মনির্ভর ভারত অভিযান ৩ ঘোষনা এলো।

আসুন দেখে নি আত্মনির্ভর ভারত অভিযান ৩ এ কি কি আছে।

নিচে আমরা আপনাদের সাথে আত্মনির্ভর ভারত অভিযান ৩ এর নানা বিষয় নিয়ে আলোচনা করছি। এতে করে আপনারা সবাই খুব সহজেই এই প্রকল্পের সুবিধা ও যোগ্যতা জানতে পারবেন।

আত্মনির্ভর ভারত অভিযান ৩.০ সারমর্ম

বিষয় বিস্তারিত
প্রকল্পের নাম আত্মনির্ভর ভারত অভিযান ৩
ঘোষনা করেন অর্থমন্ত্রী নির্মালা সীতারমান
সুবিধাভোগী ভারতের সকল জনগন
উদ্দেশ্য সমৃদ্ধশালী ভারত গঠন
অফিসিয়াল ওয়েবসাইট https://www.pmindia.gov.in/

আত্মনির্ভর ভারত Apps

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্রমোদী আত্মনির্ভর ভারত Apps চালু করেন। এখন থেকে মোবাইলে Apps এর মাধ্যমেই এই আত্মনির্ভর ভারত অভিযানের সুবিধার জন্য আবেদন করা যায়। তাই এখন আর আবেদন করার জন্য কোথাও যাবার দরকার নেই। আপনি চাইলে ঘরে বসেই এই Apps এর মাধ্যমে আত্মনির্ভর ভারত প্রকল্পের সুবিধার জন্য আবেদন করতে হবে।

আত্মনির্ভর ভারত অভিযানের সুবিধা কি কি?

আত্মনির্ভর ভারত অভিযান ভারতের অর্থনীতি গতিশীল করতে প্রায় সকল সেক্টরেই অর্থের যোগান দেবে। এই প্রকল্পের আওতায় শ্রমিক, কৃষক, ছোট ব্যবসায়ী সবার কথা মাথায় রেখে অর্থ বরাদ্ধ দেয়া হয়েছে।

১) কর্মচারীদের সুবিধার জন্য ৪০,০০০ কোটি টাকা বরাদ্ধ রাখা হয়েছে।

২) মহামারি থেকে জনগনকে রক্ষা করতে স্বাস্থ্য খাতে বরাদ্ধ রাখা হয়েছে।

৩) টেকনোলজী বিষয়ক খাতে অর্থবরাদ্ধ রাখা হয়েছে।

৪) বেসরকারীখাতে উন্নয়নের জন্য উৎসাহিত করা হয়েছে।

৫) ব্যবসা বান্ধব পরিবেশ সৃষ্টির জন্য সুবিধা দেয়া হয়েছে।

কারা কারা সুবিধা এই প্রকল্পের সুবিধা  পাবেন?

আসুন দেখে নিই কে কে এই আত্মনির্ভর ভারত প্রকল্পের সুবিধার জন্য বিবেচিত হবেন।

১) দরিদ্র জনগোষ্ঠী।

২) শ্রমিক

৩) পরিযায়ী শ্রমিক।

৪) জেল

৫) কৃষক

৬) ছোট শিল্পের শ্রমিক।

৭) মাঝারী শিল্পের শ্রমিক।

আজ আমরা আত্মনির্ভর ভারত অভিযানের বিস্তারিত জানতে পারলাম। এর ফলে আমরা আমাদের প্রয়োজন অনুযায়ী সুবিধা নেয়ার জন্য আবেদন করতে পারবো। আমাদের সাইটের পরবর্তী লেখায় আপনাদের জন্য এই বিষয়ের উপর আরো বিস্তারিত লেখা থাকবে। তাই আমাদের বাংলাভূমি সাইটে নিয়মিত চোখ রাখুন। এই লেখাটি অনেকের কাজে লাগতে পারে তাই লেখাটি যতটুকু সম্ভব শেয়ার করুন, যাতে করে অনেকে এই লেখা থেকে শিক্ষা নিয়ে ভারতীয় সরকারের নানা কর্মসূচি সম্পর্কে অনেক কিছু জানতে পারবেন।

আর্থিক প্রকল্প নিয়ে আরো অনেক লেখা পেতে আমাদের সাইটের অন্য লেখাগুলি দেখুন। আমাদের লেখা ভালো লাগলে বা যেকোন মন্তব্য আমাদের ফেসবুক পাতায় লিখুন। আমরা আপনার মন্তব্যের সর্বোচ্চ গুরুত্ব দেবো।

বিভিন্ন রকমের Invesments, Insurance, Loan, LIC Policy, Mutual Funds ইত্যাদি Financial ব্যাপারে বাংলাতে জানার জন্য আমাদের ওয়েবসাইটে নজর রাখুন। এখানে পাবেন এই সকল বিষয়ে দুর্দান্ত গাইড যা আপনাকে আপনার টাকা সুরক্ষিত ভাবে বিনিয়োগ এবং অন্যান্য ব্যাপারে সাহায্য করবে। আপনাদের যে কোন পরামর্শ, প্রশ্ন আমাদের কমেন্টের মাধ্যমে জানানোর জন্য অনুরোধ করা হলো।

Leave a Comment