Join Bangla Bhumi Telegram Channel আমাদের Telegram Channel জয়েন করুন

প্রধানমন্ত্রী মৎস্য সম্পদ যোজনা: আবেদন, অনলাইন রেজিস্ট্রেশান - PMMSY Yojana


Pradhan Mantri Matsya Sampada Yojana - PMMSY Yojana
Pradhan Mantri Matsya Sampada Yojana - PMMSY Yojana


১০ই সেপ্টেম্বর ২০২০ তারিখে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী এক ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রী মৎস্য যোজনা উদ্ভোধন করেন। এই উদ্ভোধনের সময় উপস্থিত ছিলেন বিহারের, গভর্নর, মুখ্যমন্ত্রী, মৎস্যমন্ত্রীসহ অনেকেই। এই প্রকল্পের মাধ্যমে ভারতীয় সরকার মৎস্য সম্পদ উন্নয়নে আগামী ৫ বছরে প্রায় ২০ হাজার কোটি টাকা ব্যয় করবে। এর মাঝে ১২,১৩০ কোটি টাকা ব্যয় হবে মৎস্য এবং কৃষি কাজে এবং প্রায় ৭,০০০ কোটি টাকা ব্যয় হবে মৎস্য গবেষনায়। 

আমাদের বাংলাভূমি সাইটে আমরা নিয়মিতভাবে আপনাদের জন্য নানা প্রকার গুরুত্বপূর্ন তথ্য নিয়ে আলোচনা করে থাকি, এর ফলে আপনারা নানা গুরুত্বপূর্ন তথ্য নিয়ে জানতে পারেন, যা আপনাদের দৈনন্দিন জীবনে অনেক কাজে লাগে। 


এরই ধারাবাহিকতায় আজ আমরা আপনাদের সাথে প্রধানমন্ত্রী মৎস্য সম্পদ যোজনা: আবেদন, অনলাইন রেজিস্ট্রেশান (PMMSY Yojana) নিয়ে আলোচনা করবো। এতে করে আপনারা এই মৎস্য সম্পদ যোজনা সম্পর্কে ভালোভাবে জানতে পারবেন। 


আরো পড়ুন: পশ্চিমবঙ্গের খতিয়ান ও জমির রেকর্ড সম্পর্কে সমস্তকিছু জেনে নিন

আসুন দেখে নিই প্রধানমন্ত্রী মৎস্য সম্পদ যোজনা সম্পর্কে বিস্তারিত।



এই যোজনার উদ্দেশ্য কি? 

১) আগামী ৫ বছরের মাঝে মাছের উৎপাদন ৭০ লাখ টন বৃদ্ধি করা।


২) মাছের রপ্তানি আয় ১ লাখ কোটি টাকা বৃদ্ধি করা।


৩) জেলেদের আয় ৫ বছরের মাঝে দিগুন করা।


৪) সংরক্ষণ প্রক্রিয়ায় ক্ষতি ২০% থেকে ১০% এ কমিয়ে আনা। 


৫) মৎস্য ক্ষাতে আরো ৫৫ লাখ মানুষের জীবিকার ব্যবস্থা করা। 



প্রধানমন্ত্রী মৎস্য সম্পদ যোজনার কিছু তথ্য

প্রকল্পের নাম

প্রধানমন্ত্রী মৎস্য সম্পদ যোজনা

ঘোষনাকারী

ভারতীয় সরকার

উদ্দেশ্য

ভারতের জেলেদের আয় বৃদ্ধি করা

অফিসিয়াল ওয়েবসাইট

http://dof.gov.in/pmmsy



এই প্রকল্পের জন্য আবেদনের প্রক্রিয়া কি কি ? 

আসুন দেখে নিই কি কি ধাপে এই প্রকল্পের সুবিধার জন্য আবেদন করা যায়। 

১) প্রথমেই অফিসিয়াল ওয়েবসাইট http://dof.gov.in/pmmsy এ প্রবেশ করুন।


২) তারপর সাইটে রেজিস্ট্রেশন করুন।


৩) প্রয়োজনীয় কাগজপত্র আপলোড করুন। 


৪) এবার প্রকল্পের জন্য আবেদন সম্পন্ন করুন। 


আরো পড়ুন: সম্পত্তির পৈতৃক ও উত্তরাধিকার আইন সম্পর্কে সমস্ত কিছু জানুন



এই প্রকল্পের মাধ্যমে কারা কারা উপকৃত হবেন? 

আসুন দেখে নিই এই প্রধানমন্ত্রী মৎস্য সম্পদ যোজনার মাধ্যমে কে কে উপকৃত হবেন।

১) জেলে।


২) মাছ উৎপাদনকারী কৃষক।


৩) মাছ বিক্রেতা।


৪) মাছ নিয়ে কাজ করা শ্রমিক।


৫) উদ্যোক্তা এবং বাণিজ্যিক ফার্ম।


৬) মাছের খাদ্য উৎপাদনকারী প্রতিষ্ঠান।


৭) মাছ চাষে জড়িত সকল ব্যক্তি।


৮) সরকার 



এই যোজনার জন্য আবেদনের শেষ তারিখ কবে? 

প্রধানমন্ত্রী মৎস্য যোজনার জন্য আবেদনের শেষ তারিখ ৫ই ডিসেম্বর ২০২০। 



E-Gopala Apps

ভারতীয় সরকার কৃষকদের সুবিধার্থে E-Gopala এপ্স চালু করেছে। 

এই এপ্সের মাধ্যমে কৃষকরা উন্নত বীজ এবং কৃষি পণ্য বিক্রি করার জন্য নানা তথ্য পেয়ে থাকেন। এই এপ্সের মাধ্যমে কৃষকরা নানা সুবিধা পেয়ে থাকেন।


১) এই এপ্স থেকে কৃষক কৃত্রিম প্রজনন, পশুর পুষ্টি, প্রাথমিক চিকিৎষা, ভেক্সিন নিয়ে ধারনা পাওয়া যায়।


২) সেই সাথে ভেক্সিনের মেয়াদ, গর্ভাবস্থায় নানা তথ্য, সরকারের নানা প্রকল্প নিয়ে তথ্য দিয়ে থাকে। 


৩) এই এপ্সের মাধ্যমে কৃষক বিভিন্ন তথ্য পেয়ে উপকৃত হয়ে থাকে।

 
আরো পড়ুন: দেশের বিনামূল্যে ও সবথেকে কম খরচে উন্নত হাসপাতালগুলি সম্পর্কে জেনে নিন

আজ আমরা প্রধানমন্ত্রী মৎস্য সম্পদ যোজনা নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা করলাম। এর ফলে আপনারা এই যোজনা সংক্রান্ত তথ্য সহজেই বুঝতে পারবেন, আমাদের সাইটের পরবর্তী লেখায় আপনাদের জন্য এই বিষয়ের উপর আরো বিস্তারিত লেখা থাকবে। তাই আমাদের বাংলাভূমি সাইটে নিয়মিত চোখ রাখুন। এই লেখাটি অনেকের কাজে লাগতে পারে তাই লেখাটি যতটুকু সম্ভব শেয়ার করুন, যাতে করে অনেকে এই লেখা থেকে শিক্ষা নিয়ে যোজনা সম্পর্কে অনেক কিছু জানতে পারবেন।  

ভারতের বিভিন্ন যোজনা নিয়ে আরো অনেক লেখা পেতে আমাদের সাইটের অন্য লেখাগুলি দেখুন। আমাদের লেখা ভালো লাগলে বা যেকোন মন্তব্য আমাদের ফেসবুক পাতায় লিখুন। আমরা আপনার মন্তব্যের সর্বোচ্চ গুরুত্ব দেবো। 


জমি ও খতিয়ানের তথ্য এবং জমির ভাগাভাগি আইন এছাড়া বিভিন্ন রকমের Invesments, InsuranceLoanLIC PolicyMitual Funds ইত্যাদি Financial ব্যাপারে বাংলাতে জানার জন্য আমাদের ওয়েবসাইটে নজর রাখুন। এখানে পাবেন এই সকল বিষয়ে দুর্দান্ত গাইড যা আপনাকে আপনার টাকা সুরক্ষিত ভাবে বিনিয়োগ এবং অন্যান্য ব্যাপারে সাহায্য করবে। আপনাদের যে কোন পরামর্শ, প্রশ্ন আমাদের কমেন্টের মাধ্যমে জানানোর জন্য অনুরোধ করা হলো।

No comments:

Post a Comment